কক্সবাজারের দুই আলোচিত অপরাধীর অজানা অধ্যায় (পর্ব-১)

bd newspaper, socialeyenews24,bangla news,bangla top newspaper, top news,bd news, news24, bangla all news, bd district news, social news, social eye, news bd, bd news, online newspaper, bd all news,all bangladesh news,bangladesh newspaper, socialeyenews24, socialnews,bd socialeyenews,top newspaper, crime news, top bd crime, সমাজের চোখ সংবাদপত্র, বাংলা সংবাদপত্র, সারাদেশের সংবাদ, অপরাধ সংবাদ, সব সময়ের আপডেট সংবাদ, বাংলাদেশের সংবাদপত্র, সেরা সংবাদ, সমাজের চোখ, বিডি নিউজ, বাংলাদেশের সংবাদপত্র, বাংলার খরব, বাংলা খরব,

নূরুল বশর মানিক - কক্সবাজার প্রতিনিধি

কক্সবাজার শহর ও আশেপাশের এলাকাগুলোতে দীর্ঘ দিন ধরে এক এক পরিচয়ে ছন্মবেশে মাদক ব্যবসা, মানবপাচার,  অফিস-আদালতে ও পাসপোর্ট অফিসে দালালী,  প্রতারণা, জাল-জালিয়াতি,  হত্যাচেষ্টা, অপহরণ,  হত্যা, গুম, মুক্তিপণ আদায়ের মত জঘন্য সব অপরাধ করে বেড়াচ্ছে রামু উপজেলার খুনিয়াপালং ইউনিয়নের দারিয়ারদীঘি গ্রামের জালিয়াত আবুলু ও দালাল রহিম নামের দুই  চিহ্নিত অপরাধী।

 দারিয়ার দীঘি গ্রামের মৌলবীবাজার এলাকার এহেসান উল্লাহ পূত্র আবুল আলা প্রকাশ জালিয়াত আবুলু (৩৬) ও মৃত আবদু ছমদের পূত্র আব্দুর রহিম  প্রকাশ দালাল রহিম  (৩৬) উভয়েই অর্ধ ডজনের বেশী আলোচিত ফৌজদারী মামলার আসামী। 
২০১৩ সালে এলাকার লোকজনের সাথে প্রতারণা সহ বিভিন্ন অপরাধের কারণে এলাকা থেকে বিতাড়িত হয়ে কক্সবাজার শহরে আত্মগোপনে আশ্রয় নিয়ে উভয়ে কখনো আইনজীবী, কখনো সংবাদকর্মী বা মানবাধিকারকর্মী, কখনো এনজিও বা রোহিঙ্গা ক্যাম্পের অথবা এজেন্সীর কর্মকর্তা, কখনো শিক্ষক/প্রশিক্ষক ইত্যাদি এক এক সময়ে এক এক পরিচয়ে ইয়াবা সহ মাদক ব্যবসা, বিদেশ মানব ও নারী পাচার, অফিস আদালতে ও পাসপোর্ট অফিসে দালালী, প্রতারণা, জাল-জালিয়াতি, গুম, মুক্তিপণ আদায়, হত্যা, হত্যা চেষ্টা ও অপহরণের মত বহু  অন্যায়-অপরাধে জড়িয়ে পড়ে।  উভয়ের স্থানীয় খুনিয়াপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাংবাদিক আবদুল মাবুদ  জালিয়াত আবুলু ও দালাল রহিমের বহু প্রতারণা. ইয়াবা ট্যাবলেট ব্যবসা ও মানবপাচার সহ বিভিন্ন অপরাধ কর্মকান্ডের কথা এই প্রতিবেদকের কাছে অকপটে স্বীকার করে  জানান, এই দুই চিহ্নিত প্রতারক ও আলোচিত  অপরাধী দীর্ঘদিন এলাকাছাড়া। 
তারা কক্সবাজার শহরে  আত্মগোপনে থেকে এক এক পরিচয়ে প্রতারণা, মাদক ব্যবসা ও মানবপাচার সহ বিভিন্ন অপরাধ মূলক কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। রামু থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আবুল মনসুর জানান, আলোচিত প্রতারক ও চিহ্নিত অপরাধী আবুল আলা প্রকাশ জালিয়াত আবুলু ও আব্দুর রহিম প্রকাশ দালাল রহিমের বিষয়ে ইতিমধ্যে তদন্ত কার্যক্রম চলছে। কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ফরিদ উদ্দীন খন্দকার ছুটিতে থাকায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। 
অভিযুক্ত আবুল আলা প্রকাশ আবুলু ও আবদুর রহিম প্রকাশ দালাল রহিমের বক্তব্য নেওয়ার জন্য তাদের একাধিকবার কল দিলেও তারা মোবাইল রিসিভ করেননি। (চলবে)।।


SHARE THIS

0 Comments:

মতামতের জন্য ধন্যবাদ।