জয়পুরহাটে মাদকের আসামী ধরতে গিয়ে নদীতে ঝাঁপ দিয়ে র‌্যাব সদস্যের মৃত্যু

জয়ন্ত রায়, (বোচাগঞ্জ) - দিনাজপুর প্রতিনিধি

জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে মাদকের আসামি ধরতে ঝাঁপ দিয়ে নদীর প্রবল স্রোতে ডুবে জয়পুরহাট র‌্যাব-৫ ক্যাম্পে কর্মরত মোঃ সাহেদুজ্জামান নামের এক সহকারী পরিদর্শকের অনাকাঙ্খিত মৃত্যু হয়েছে।
মৃত সাহেদ দিনাজপুর জেলার বোচাগঞ্জ উপজেলার  বড় সুলতানপুর এলাকার টেনা গ্রামের রিয়াজ ইসলামের ছেলে। শনিবার (১৮ জুলাই) বিকেলে পাঁচবিবির ছোট যমুনা নদীতে এ হৃদয়স্পর্শী দুর্ঘটনাটি ঘটে।
জয়পুরহাট র‌্যাব-৫ এর ক্যাম্প কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাইমেনুর রশিদ এবিষয়ে বলেন, মাদক বিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে আজ বিকেলে পাঁচবিবি উপজেলার বড় মানিক এলাকায় ছোট যমুনা নদীর পাশে মাদকসেবীদের ধরতে অভিযান চালায় র‍্যাব-৫ এ কর্মরত অফিসার এস আই সাহেদ ও সঙ্গীয় ফোর্স। অভিযানের এক পর্যায়ে সহকারী পরিদর্শক (এস.আই) সাহেদুজ্জামানসহ কয়েকজন র‌্যাব সদস্যদের দেখে মাদক কারবারিরা পালানোর চেষ্টা করে। তাৎক্ষণিক, তাদের ধাওয়া করলে আসামিরা নদীতে ঝাঁপ দেয়, কিন্তু নাছোরবান্দা র‍্যাব অফিসার সাহেদ তাদের ধরতে ঝাঁপ দেয়। নদীতে প্রবল স্রোতের মধ্যে পড়ে এস আই সাহেদ পানিতে তলিয়ে যায় এবং প্রান হারান।
বেশ কিছুক্ষণ পর নদী থেকে সাহেদকে উদ্ধার করে পাঁচবিবির মহীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এস আই সাহেদের স্ত্রী ও দুই মেয়ে রংপুর সিটিতে থাকত। 
মৃত সাহেদ বাবার একমাত্র ছেলে, বাবা মা সহ তার দুইটি বোন রয়েছে। তার বড় বোন বোচাগন্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সেবিকা। ছোট বোন পড়াশোনা করছে। র‍্যাবে যোগদানের আগে সাহেদ রংপুরে পুলিশে কর্মরত ছিলেন। তার স্ত্রী ও ছোট দুটি মেয়ে রংপুরেই স্থায়ী ভাবেই থাকত।

SHARE THIS

0 Comments:

মতামতের জন্য ধন্যবাদ।