Showing posts with label news24. Show all posts
Showing posts with label news24. Show all posts
ফরিদগন্জ রুপসা ৩ ও ৪নং ওয়ার্ড অাওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সম্পন্ন

ফরিদগন্জ রুপসা ৩ ও ৪নং ওয়ার্ড অাওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সম্পন্ন

Three yearly conference in volunteers is complete

চাঁদপুর (ফরিদগন্জ) প্রতিনিধি

     চাঁদপুর ফরিদগন্জ উপজেলার ১৫ নং রুপসা (উঃ)ইউনিয়ন অাওয়ামী  সেচ্চাসেবক লীগের অায়োজনে ৩ ও ৪ নং ওয়ার্ড সেচ্চাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার ৭ মে বিকেল ৪টায় স্হানীয় রুপসা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের হল রুমে।
      অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্হিত ছিলেন ফরিদগন্জ উপজেলা  পরিষদের ভাইস- চেয়ারম্যান ও উপজেলা  অাওয়ামী লীগের যুগ্নসাধারন সম্পাাদক ওয়াহিদুর রহমান রানা। শুরুতেই পবিত্র কোরঅান তেলোয়াতের মধ্য দিয়ে  সম্মেলনের কার্যক্রম শুরু হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওয়াহিদুর রহমান রানা বলেছেন, বাংলাদেশ অাওয়ামী সেচ্ছাসেবক লীগ দেশের বৃহওম রাজনৈতিক দল অাওয়ামীলীগের একটি সহযোগী ও গুচ্ছ সংগঠন। দেশের মহান স্বাধীনতা অর্জনের পর এ সংগঠন প্রতিষ্ঠিত হয়ে অাওয়ামী লীগের পাশে থেকে দেশের নৈরাজ্য সৃষ্টিকারী বিএনপি জামায়াতের জ্বালাও পোড়াও  এর প্রতিবাদে ও বিভিন্ন অান্দোলন সংগ্রামে অগ্রনী ভুমিকা পালন করেছে।
     তিনি অারোও বলেন,  সচ্ছ ও গোছালো  এ সংগঠনের সম্মেলনে যাদের ওয়ার্ড নেতা নির্বাচন করবে তারা যেন একান্ত দলের একানিষ্ট কর্মী হয় ঐ দিকে লক্ষ রেখে নেতা নিদ্ধারনের অাহব্বান জানান তিনি। চলতি বছরের শেষভাগে জাতীয় নির্বাচনে ফরিদগন্জের এ অাসনে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে সেচ্চাসেবকলীগের সকল নেতা কর্মীকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মাঠে কাজ করার অাহব্বান জানান তিনি।
     ইউনিয়ন সেচ্ছাসেবকলীগের অাহব্বায়ক ওয়ালিদ বিন পাবেলের সভাপতিত্বে ও যুগ্নঅাহব্বায়ক মোঃ অাজাদ হোসেনের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, ইউনিয়ন অাওয়ামীলীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা নাজিমউদ্দীন পাটওয়ারী, উপজেলা সেচ্চাসেবক লীগের সাধারন সম্পাাদক কাউসার উল অালম কামরুল। অারোও বক্তব্য রাখেন,  উপজেলা যুবলীগের সদস্য অাব্দুর ছাত্তার কচি ২নং ওয়ার্ড অাওয়ামী লীগের সভাপতি খোরশেদ অালম ৩নং ওয়ার্ড অাওয়ামীলীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন চৌধুরী ৭নং ওয়ার্ড অাওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সোলাইমান হোসেন ভোলা ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি  হানিফুর রহমান মাসুদ উপজেলা সেচ্ছাসেবক লীগের  স্বাস্হ্য বিশোয়ক সম্পাদক নন্দন দত্ত জয়, সাহিত্যিক বিশোয়ক সম্পাাদক মাঈনউদ্দিন শরীফ। এছাড়াও উপস্হিত ছিলেন, বিভিন্ন ওয়ার্ডের অাওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও সেচ্চাসেবকলীগের নেতৃবৃন্দ।
         পরে সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশনে ৪ নং ওয়ার্ডের মোঃ সহিদউল্যাকে সভাপতি সবুজ মিয়াকে সহ সভাপতি মোঃ মনির হোসেনকে সাধারন সম্পাদক ও মোঃ অালী হোসেনকে সাংগঠনিক সম্পাদক পদে নির্বাচিত করা হয়। এবং ৩ নং ওয়ার্ডের ফলাফল স্হগিত করা হয়।

মোশারফ হোসেন ফারুক মৃধা

রবীন্দ্রনাথ এলাকার কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে যে অবদান রেখেছেন তা অবিস্মরণীয়

রবীন্দ্রনাথ এলাকার কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে যে অবদান রেখেছেন তা অবিস্মরণীয়


 নওগাঁ প্রতিনিধি

রবীন্দ্রনাথ এলাকার কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে যে অবদান রেখেছেন তা অবিস্মরণীয়
ডেপুটি স্পীকার ফজলেরাব্বি

      জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পীকার এড. ফজলে রাব্বি মিয়া বলেছেন, বিশ^কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর যে সোনার বাংলার স্বপ্ন দেখেছিলেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেটাকে বাস্তবে রুপদানের চেষ্টা করেছে। আর বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেটাকে বাস্তবে রুপদান করেছেন। তিনি বলেন, রবীন্দ্রনাথ এলাকার কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে যে অবদান রেখেছেন তা অবিস্মরণীয়। স্থানীয়দের পতিসরে একটি কৃষি বিশ^বিদ্যালয় স্থাপনের দাবির প্রেক্ষিতে তিনি বলেন, রবীন্দ্রনাথ যেহেতু কৃষিপ্রেমি ছিলেন, নওগাঁ যেহেতু সারা দেশের শস্যভান্ডার হিসেবে খ্যাত সেহেতু পতিসরে একটি কৃষি বিশ^বিদ্যালয় স্থাপন যৌক্তিক। তিনি আরও বলেন, রবীন্দ্রনাথের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত হোন এবং শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করুন। তাহলে পতিসরে কৃষি বিশ^বিদ্যালয় স্থাপন হবে ইনশাআল্লাহ। গতকাল মঙ্গলবার কবিগুরুর স্মৃতি বিজড়িত আত্রাইয়ের পতিসর কাচারিবাড়ির দেবন্দ্র মঞ্চে বিশ^কিব রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৭ তম জন্মোৎসব অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন। 
        নওগাঁ জেলা প্রশাসন কর্তৃক আয়োজিত দিনব্যাপী অনুষ্ঠানমালার উদ্বোধনী এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন নওগাঁ জেলা প্রশাসক মো. মিজানুর রহমান। উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত থেকে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন পাট ও বস্ত্র মন্ত্রী ইমাজ উদ্দিন প্রামানিক। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জাতীয় সংসদের হুইপ শহিদুজ্জামান সরকার এমপি, মো. ইসরাফিল আলম এমপি, ছলিম উদ্দিন তরফদার এমপি, আবুল কালাম এমপি, নওগাঁ সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ (অব:) শরিপুল ইসলাম খান, নওগাঁ পুলিশ সুপার মো. ইকবাল হোসেন, আত্রাই উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ এবাদুর রহমান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মোখলেছুর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নৃপেন্দ্রনাথ দত্ত দুলাল, সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী গোলাম মোস্তফা বাদল, এম মতিউর রহমান মামুন প্রমুখ। উল্লেখ্য কবির জন্মোৎসবকে ঘিরে গোটা পতিসর এলাকায় সৃষ্টি হয় উৎসবের আমেজ। কবিভক্তদের পদচারণায় কাচারিবাড়ি চত্বর হয়ে উঠে মুখোরিত। তাঁর ১৫৭ তম জন্মোৎসব অনুষ্ঠান দুইভাগে ভাগ করা হয়। প্রথম পর্বে স্মৃতি চরণ ও আলোচনা সভা এবং দ্বিতীয় পর্বে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

বিকাশ চন্দ্র প্রাং


উৎপাদনের চেয়ে সংগ্রহ অভিযান কম, চালকল মালিকদের ক্ষোভ

উৎপাদনের চেয়ে সংগ্রহ অভিযান কম, চালকল মালিকদের ক্ষোভ


Less collection drive, rice mills anger

নওগাঁ প্রতিনিধি

        নওগাঁয় উৎপাদনের চেয়ে সরকারি গুদামে বোরো চাল সংগ্রহের বরাদ্দ কম হওয়ায় স্থানীয় চালকল মালিকেরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তাঁদের অভিযোগ, সরকারের ধান-চাল সংগ্রহের ক্ষেত্রে বরাবরই নওগাঁর জেলার মানুষ বৈষম্যের শিকার হন। অন্যান্য জেলায় উৎপাদন কম হওয়া সত্ত্বেও সেখান থেকে বেশি করে ধান-চাল সংগ্রহ করে। 
      গতকাল মঙ্গলবার নওগাঁ সদর উপজেলায় বোরো চাল সংগ্রহ অভিযান উপলক্ষে এক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চালকল মালিকেরা এ অভিযোগ করেন। গতকাল বেলা ১১টায় সদর উপজেলা খাদ্যগুদামে আনুষ্ঠানিকভাবে এই চাল সংগ্রহ অভিযানের উদ্বোধন করেন সদর আসনের সাংসদ আব্দুল মালেক।
     জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয় সূত্র থেকে জানা যায়, এই মৌসুমে সরকারি সিদ্ধান্ত অনুযায়ী খাদ্য বিভাগ ৩৮ টাকা কেজি দরে জেলায় মোট ৪৩ হাজার ২ মেট্রিক টন চাল সংগ্রহ করা হবে। এর মধ্যে সদর উপজেলায় সংগ্রহ করা হবে ১৯ হাজার ৭১৭ মেট্রিক টন। সরকারি গুদামে চাল সরবরাহে খাদ্য বিভাগের সঙ্গে চুক্তির শেষ হবে আগামীকাল বৃহস্পতিবার। চাল সংগ্রহ অভিযান চলবে আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত।  নওগাঁয় চলতি মৌসুমে বোরো চাল উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ১ লাখ ৯০ হাজার মেট্রিক টন।
      উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে জেলার অন্যতম চাল প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান বেলকন কোম্পানী লিমিটেডের চেয়ারম্যান বেলাল হোসেনকে নওগাঁ সদর উপজেলা খাদ্যগুদামে ২০ মেট্রিক টন চাল সরবরাহের জন্য ওজনমান মজুদ সনদ প্রদানের মধ্যে দিয়ে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি সাংসদ আব্দুল মালেক। 
      এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক আব্দুস সালাম, সহকারী খাদ্য নিয়ন্ত্রক মোহাজের হাসান, সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক দুলাল উদ্দিন খান, জেলা চালকল মালিক সমিতির সভাপতি রফিকুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক ফরহাদ হোসেন চকদার, যুগ্ম-সম্পাদক মোতাহার হোসেন, সদর খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল কাইয়ুম প্রমুখ। 
    অনুষ্ঠানে উপস্থিত চালকল মালিকেরা জেলায় উৎপাদনের তুলনায় চাল সংগ্রহ অভিযান কম হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন এবং চাল সংগ্রহের চুক্তির মেয়াদ আরও কিছু দিন বাড়ানোর দাবি জানান। জেলা চালকল মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ফরহাদ হোসেন চকদার বলেন, ‘আয়তনে বড় জেলা এবং ধান-চাল উৎপাদনের দিক দিয়ে দেশের অন্যতম জেলা হওয়ার পরেও সরকারের ধান-চাল সংগ্রহের ক্ষেত্রে আমরা বৈষম্যের শিকার হচ্ছি। উদাহরণ হিসেবে পাশ্ববর্তী বগুড়া জেলা আয়তনে নওগাঁর সমান এবং সেখানে নওগঁরা চেয়ে চালকল সংখ্যা অনেক কম। তারপরেও বগুড়া থেকে নওগাঁর চেয়ে দ্বিগুনেরও বেশি চাল সংগ্রহ করা হচ্ছে। এটা একধরণের চরম বৈষম্য।’
     জেলা চালকল মালিক সমিতির সভাপতি রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘সরকারের ধান-চাল সংগ্রহের ওপর অনেকক্ষেত্রে বাজারে ধানের দাম কত হবে তা নির্ধারণ করে থাকে। সরকার যত বেশি চাল সংগ্রহ করবে মিলাররা কৃষকদের কাছ থেকে তত বেশি ধান সংগ্রহের জন্য আগ্রহ দেখাবেন। এত কৃষকেরা ধানের দাম ভালো পাবেন। বেলকন অটোমেটিক রাইস মিলের মালিক বেলাল হোসেন অভিযোগ করেন, ‘নওগাঁর খাদ্য নিয়ন্ত্রণ কর্মকর্তা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের কাছে সঠিকভাবে তথ্য উপস্থাপন করতে না পারায় বারবার বৈষম্যের শিকার হচ্ছে নওগাঁর মানুষ। আবার অনেকক্ষেত্রে যেটুকু বরাদ্দ পাক না কেন-সেটা আবার অনিয়ম করে সঠিকভাবে মিলার কিংবা সাধারণ মানুষদের বন্টন করা হয় না। ’ 
     এসব অভিযোগ এবং বক্তব্যের জবাবে নওগাঁ জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা আব্দুস সালাম বলেন, উর্ধ্বতন কর্মকর্তার কাছে আমি সঠিকভাবেই তথ্য উপস্থাপন করি। এখন অন্যান্য জেলার কর্মকর্তারা যদি উৎপাদন বেশি দেখিয়ে বরাদ্দ বেশি আদায় করে সেক্ষেত্রে আমার কিছু করার নেই। আর মিলারদের সঙ্গে চুক্তিতে অনিয়মের অভিযোগ ভিত্তিহীন। চালকল মালিকদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে অনুষ্ঠানে থেকেই মুঠোফোনে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সদর আসনের সাংসদ আব্দুল মালেক খাদ্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের (ডিজি) সঙ্গে কথা বলেন। পরে তিনি বলেন, নওগাঁয় চাল সংগ্রহের বরাদ্দ আরও বাড়ানোর জন্য ডিজি প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। চুক্তির মেয়াদ আরও কিছু দিন বাড়ানোর জন্য জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রককে নির্দেশ দেন।

বিকাশ চন্দ্র প্রাং


নড়াইলে এনপিপি’র চেয়ারম্যান নিলুর মৃত্যুবার্ষিকীতে আলোচনা সভা

নড়াইলে এনপিপি’র চেয়ারম্যান নিলুর মৃত্যুবার্ষিকীতে আলোচনা সভা


নড়াইল প্রতিনিধি

        ন্যাশনাল পিপল্স পার্টির (এনপিপি) প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শেখ শওকত হোসেন নিলুর প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে নড়াইলে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। রোববার (৬ মে) বিকেলে নড়াইলের বাদশার গ্যারেজ এলাকায় দলীয় কার্যালয়ে এসব অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এনপিপির কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব ও জেলা সভাপতি মনিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মনুসরুল হক ভূঁইয়া, জেলা কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি মিয়া, সহ-সভাপতি ইলিয়াস হোসেন, যুগ্মসম্পাদক মুকুল হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদ হাসান, সদস্য মিলন হোসেন, এনপিপি-স্বেচ্ছাসেবকপার্টির যুগ্মসম্পাদক জিয়াউর রহমান প্রমুখ।
      এ দিকে শওকত হোসেন নিলুর আত্মার শান্তি কামনায় কোরআনখানি, দোয়া ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। শেখ শওকত হোসেন নিলু অসুস্থ অবস্থায় ২০১৭ সালের ৬ মে মৃত্যুবরণ করেন। 

এস এম আলমগীর কবির

ঘূর্ণিঝড়ে খাগড়াছড়ি দিঘীনালা জামতলীতে মানিকছড়ি হেডম্যান পাড়া স: প্রা: বিদ্যালয়ের বেহাল দশা

ঘূর্ণিঝড়ে খাগড়াছড়ি দিঘীনালা জামতলীতে মানিকছড়ি হেডম্যান পাড়া স: প্রা: বিদ্যালয়ের বেহাল দশা

Cyclone phobia school

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি

      আজ ০৭ মে ২০১৮খ্রি. সোমবার ভোর হতে প্রবল কালবৈশাখী ঝড়ে লণ্ডভন্ড হয়ে গেল মানিকছড়ি হেডম্যান পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যাল।
     খাগড়াছড়ি জেলাধীন দিঘীনালাে উপজেলাস্থ বোয়ালখালী ইউনিয়ন জামতলী পাড়ায় মানিকছড়ি হেডম্যান পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় অবস্থিত। প্রধান শিক্ষকসহ মোট ছয়জন শিক্ষক-শিক্ষিকা ও ৪১০ জন শিক্ষার্থী বর্তমানে।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ঝর্না চৌধুরী জানান, বর্তমানে এই অবস্থায় শিক্ষার্থীদের ক্লাস করতে ব্যাহত হবে। তবে এই ব্যাপারে উধ্বর্তন কর্মকর্তাকে জানানো হবে বলে জানান।
     বিদ্যালয়ে একজন সহকারী শিক্ষক জানান, বিদ্যালয়ে বর্তমানে মোট ০৬ জন শিক্ষক-শিক্ষিকা ও ৪১০ জন শিক্ষার্থী পড়াশুনা করে। বিদ্যালয়ের জন্য কোন সংস্থা, সরকারি প্রতিষ্ঠান কোন ভবনের আশ্বাস দিয়েছে কিনা বলে জিঙ্গাসা করলে তিনি জানান, এলজিডি প্রকল্পের আওতাধীন থেকেে একটা ভবন হওয়ার কথা তবে কখন হবে ঠিক বলা যায় না। এছাড়াও বিদ্যালয়ের যে কালবৈশাখী ঝড়ে যে লণ্ডভণ্ড হয়েছে বলে খবন পেয়েেউপজেলা থেকে বা কোন সংস্থা সরেজমিনে গিয়েছে কিনা জিঙ্গাসা করলে তিনি বলেন, আসেনি। বলে জানান।
      সর্বশেষে, বলতে চাই বিদ্যালয়টি অতিশীঘ্রই যথাযথ ব্যবস্খা নিতে অনুরোধ করেন ছাত্র-শিক্ষক, এসএমসি কমিটি ও পাড়ার এলাকাবাসীরা। এছাড়াও খবর পাওয়া যায়, বিভিন্ন এলাকায় প্রবল কালবৈশাথী ঝড়ে অনেকে ফল ও শাকসবজি থেকে অনেক ফলজ বাগান নষ্ট হয়েছে।

দহেন বিকাশ ত্রিপুরা